1. ssexpressit@gmail.com : admin :
  2. dailynatundiganto@gmail.com : Homayon Kabir : Homayon Kabir
সর্বশেষ :
আশুলিয়ায় রাতের আধাঁরে জমি দখলে বাধা দিলে পুলিশ পরিবারের উপর হামলা নয় দেশকে হারিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট ক্লাব ওমানের জয় ;জমকালো আয়োজনে উদযাপন ১৪ বছর ধরে বঙ্গবন্ধু পরিবারের নামে কুরবানী দেন কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা কাজী ছরোয়ার হোসেন। বৃদ্ধ আব্দুল আলিম নিজ বাড়িতে ফিরে যেতে চান সাঁকো থেকে পরে নাসিরনগরে আপন ভাই-বোনের মৃত্যু আখাউড়ায় ভিপি নূরের বিরুদ্ধে আইনমন্ত্রীকে কটুক্তির প্রতিবাদে ঝাড়ু মিছিল রাষ্ট্রদূতের সাথে চট্টগ্রাম সমিতি ওমানের সৌজন্যে সাক্ষাৎ গোয়ালন্দ পৌরসভার ড্রেন নির্মানে অনিয়ম। বাংলা সাহিত্যে বিশেষ অবদানে লিটারেচার স্বর্ণপদক এ্যাওয়ার্ড পেলেন কবি ও সংগঠক আমির বিন সুলতান ধ্বংসের রঙ্গমঞ্চ

সাভারে স্বামীর সর্বস্ব লুটে পলাতক স্ত্রী; দিশেহারা স্বামী রেজাউল

  • সর্বশেষ আপডেট : সোমবার, ১০ জানুয়ারী, ২০২২
  • ২৭৪ বার পড়েছে

সাভার প্রতিনিধি : সিরাজগঞ্জের সদর থানার দিয়ার পাচিল গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা রেজাউল করিম। দীর্ঘদিন ধরে স্ত্রী রেহানা বেগমসহ সন্তানদের নিয়ে বসবাস করে আসছিলেন আশুলিয়া থানাধীন আউকপাড়ার ছায়া কুঞ্জ এলাকায়। বেশ সাচ্ছন্দ্যেই চলছিলো তাদের সংসার। সুখ-শান্তি আর ভালোবাসায় তাদের দুই সন্তানকে নিয়ে সর্গসুখে ভাসছিলেন এই দম্পতি। তাদের সুখ যেনো আর সইছিলোনা।

ভুক্তভোগী রেজাউল করিম ও আশুলিয়া থানায় অভিযোগকৃত ডকুমেন্টসূত্র থেকে জানা যায় গতো ৩১-১২-২০২১ তারিখে নিজের কর্মস্থল গাজীপুরের মাওনায় চলে যান রেজাউল, পরে ভোট দিতে পাঁচ জানুয়ারী ২০২২ তারিখে নিজ বাড়ি ছায়া কুঞ্জে ফিরে এসে জানতে পারেন স্ত্রী পালিয়েছে,সাথে নিয়ে গেছে দুই সন্তান ও তার বাড়ির সমস্ত আসবাবপত্র, টাকা পয়সা,ব্যাংকের চেক,ভোটার আইডি কার্ড,স্বর্ন গহনা সহ তিন লাখ নগদ টাকা ও গুরুত্বপূর্ণ সবকিছু।

স্ত্রী- সন্তান ও নিজের সর্বস্ব হারিয়ে পাগলপ্রায় রেজাউল করিম প্রতিবেদককের সাথে আলাপকালে জানান আমার স্ত্রীকে শশুর বাড়ির লোকজন ফুসলাইয়া আমার এ মহা সুখের সংসারে আগুন জ্বালিয়েছে। আমাকে করেছে সন্তানহারা। আমার সব শেষ করে ফেলেছে ওরা। বিশেষ করে আমার স্ত্রীর বড় ভাই সেনাবাহিনীতে কর্মরত মোঃ মহসিনের সরাসরি উস্কানিতে এমনটা হয়েছে বলে আমি মনে করি। এছাড়াও আবু হাসেম,সুলতান আহমেদ ও সবুজ মিয়ারও হাত রয়েছে। মহসিন এর সহযোগীতায় বড় ট্রাক ভাড়া করে আমার সব কিছু নিয়ে গেছে। আমি এর বিচার চাই। ফোন করে শশুর বাড়ির লোকদের কাছে আমার স্ত্রী সন্তানের বিষয়ে জানতে চাইলে আমাকে প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করে তারা। এমতাবস্থায় আমি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি এবং সরকারসহ সংশ্লিষ্টদের কাছে এর প্রতিকার দাবি করছি। আমি আমার সমস্ত মালামালসহ স্ত্রী-সন্তানদের ফেরত চাচ্ছি, সেই লক্ষ্যে আশুলিয়া থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছি যার নম্বর ৫০০।

দীর্ঘদিন ধরে আমার সাভারের ছায়া কুঞ্জের বাড়িটি স্ত্রীর নামে লিখে দেয়ার জন্যে চাপ দিয়ে আসছিলো। আমি সম্পত্তি লিখে দেইনি বলে আমার সাথে এহেন অমানুষিক আচরণ করা হয়েছে। এখন আমি বেঁচে থেকেও যেনো মরে গেছি। বিশেষ করে সন্তানদের হাড়িয়ে আমি পাগল প্রায়।

এসব অভিযোগের বিষয়ে মুঠোফোনে সেনাবাহিনীতে কর্মরত রেজাউলের স্ত্রীর ভাই মোঃ মহসিনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি মালামাল নেয়ার বিষয়টি শিকার করেন ও তার ভগ্নিপতি রেজাউলের সাথে অন্য মেয়ের সাথে সম্পর্ক রয়েছে ও তার বোনকে ঠিক মতো ভরণপোষণ না দেয়ার অভিযোগ করেন। তার ভগ্নিপতির অনুমতি ছাড়া বাড়ি থেকে মালামাল ও গুরুত্বপূর্ণ সব কাগজপত্র নিয়ে যেতে পারেন কিনা প্রতিবেদকের এমন প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যান।
স্থানীয় এক ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী কৃষ্ণ, জানান মালামাল নিয়ে যাওয়ার সময় আমি নিজেও বাধা দিয়েছি কিন্তু তাতেও কোনো কাজ হয়নি সে তার সেনাবাহিনীতে কর্মরত ভাইয়ের সহযোগিতায় ট্রাক ভাড়া করে মালামাল নিয়ে যাচ্ছে বলে জানান ।

রেজাউলের প্রতিবেশীরাও জানান এই দম্পতিরা বেশ ভালোভাবেই জীবনযাপন করছিলেন, হঠাৎ করেই এমন ঘটনায় তারাও হতবাক। কোনরকম কালক্ষেপণ ছাড়াই এমন ঘটনায় দোষীদের আইনের আওতায় আনা ও সন্তান সহ স্ত্রীকে ফেরত পাওয়ার দাবি ভুক্তভোগির।

সংবাদটি শেয়ার করুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও সংবাদ :